আরো ৪ দেশে শনাক্ত ওমিক্রন

প্রতীকি ছবি

দক্ষিণ আফ্রিকার পাশাপাশি বেলজিয়াম, বতসোয়ানা, ইসরায়েল ও হংকংয়েও নভেল করোনাভাইরাসের রূপান্তরিত ধরন ওমিক্রন শনাক্ত হয়েছে। ইউরোপে সর্ব প্রথম করোনার এই ধরন শনাক্ত হয়েছে বেলজিয়ামে। খবর বিবিসির।

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (ডব্লিউএইচও) এক বিবৃতিতে জানিয়েছে, করোনাভাইরাসের নতুন এই ধরনটি মূল ভাইরাস ও তার অন্য রূপান্তরিত ধরনগুলোর চেয়ে অনেক দ্রুতগতিতে ছড়িয়ে পড়তে বা মানুষকে আক্রান্ত করতে সক্ষম। প্রাথমিক যেসব তথ্য পাওয়া গেছে সেসব পর্যালোচনা করে বোঝা যাচ্ছে- করোনায় আক্রান্ত হওয়ার পর সুস্থ হয়ে ওঠা ব্যক্তিরাও ওমিক্রনে আক্রান্ত হতে পারেন।

২৫ নভেম্বর দক্ষিণ আফ্রিকায় প্রথম শনাক্ত হয় বি.১.১৫২৯ নামের এই রূপান্তরিত ধরনটি, পরে গ্রিক বর্ণমালা অনুসারে যার নাম দেওয়া হয় ওমিক্রন। ইতোমধ্যে এই ধরনটি দক্ষিণ আফ্রিকার বাইরে ছড়িয়ে পড়েছে।

নতুন ধরনের ভাইরাসটি মোকাবেলায় ইতোমধ্যে ব্যবস্থা নিতে শুরু করেছে বিভিন্ন দেশ ও অঞ্চল। যুক্তরাষ্ট্র, ইউরোপীয় ইউনিয়ন ও মধ্যপ্রাচ্যের পাঁচ দেশ আফ্রিকার ৮টি দেশের সঙ্গে বিমান চলাচল বন্ধ করছে। ব্যবস্থা নিয়েছে বাংলাদেশ সরকারও।

বাংলাদেশে করোনার এ ধরনটির প্রবেশ ঠেকাতে ইতোমধ্যে আকাশপথের পাশাপাশি দেশের সব সীমান্তে কড়াকড়ি ব্যবস্থা নেওয়ার কথা জানিয়েছে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়।

শনিবার (২৭ নভেম্বর) দুপুরে স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের জ্যেষ্ঠ তথ্য কর্মকর্তা মাইদুল ইসলাম প্রধান স্বাস্থ্যমন্ত্রীর বরাতে এমন নির্দেশণার কথা জানান।

এছাড়া আগামী সপ্তাহে হতে যাওয়া বিশ্ব বাণিজ্য সংস্থার (ডব্লিউটিও) সম্মেলন স্থগিত কয়ে দেয়া হয়েছে। ডি-ইভূ

LEAVE A REPLY