নেইমারের আক্ষেপ

আলভারো গনজালেজের দিকে তেড়ে যান নেইমার

ফরাসি লিগ ওয়ানে রবিবার মার্শেইয়ের খেলোয়াড়দের সঙ্গে মারামারিতে জড়ায় পিএসজির খেলোয়াড়রা। সেই মারামারিতে জড়িয়ে পড়েছিলেন পিএসজি ও বিশ্বের সবচেয়ে দামি খেলোয়াড় নেইমার।

নেইমারকে দেখা যায় তিনি মার্শেইয়ের ডিফেন্ডার আলভারো গনজালেজের মাথায় থাপ্পড় মারছেন। তখন গনজালেজ নেইমারের দিকে তেড়ে আসেন। আর এই ঘটনার কারণে ভিএআরে পরীক্ষা করে নেইমারকে লাল কার্ড দেখান ম্যাচ রেফারি।

আর এই ম্যাচটি শেষ হওয়ার কিছুক্ষণ পরই নিজের ট্ইুটার অ্যাকাউন্টে একটি টুইট করেন নেইমার। সেই টুইটে তিনি লেখেন, ‘আমার একমাত্র দুঃখ ওই বদমাইশকে (আলভারো গনজালেজেকে) মুখে ঘুষি মারিনি। তার এমন টুইটে অবাক হন অনেকেই। পরবর্তীতে নেইমার আরেকটি টুইট করেন। সেই টুইটে তিনি জানান কেন তিনি গনজালেজের মুখে ঘুষি না মারতে পেরে আক্ষেপ করছেন। দ্বিতীয় টুইটে নেইমার বলেন, ‘ভিএআর আমার মারামারিতে জড়িয়ে পরা দেখিয়েছে। এটা খুবই সহজ। এখন আমি সেই রেসিস্টের ছবি দেখতে চাই যেখানে আমাকে বানর বলে গালি দিয়েছে।’

এমনকি নেইমার যখন লাল কার্ড দেখে মাঠ থেকে বেরিয়ে যাচ্ছিলেন তখন চতুর্থ রেফারির কাছে গিয়ে গনজালেজের বিরুদ্ধে বর্ণবাদের অভিযোগ তুলে নালিশ করেন।

তবে আলভারো গনজালেজ নেইমারের সঙ্গে কোনো বর্ণবাদমূলক আচরণ করেননি বলে দাবি করে পাল্টা টুইট করেছেন। তিনি আরো দাবি করেছেন ম্যাচ হারায় নেইমারসহ অন্যদের মাথা নষ্ট হয়ে গেছে। ফলে তার বিরুদ্ধে মিথ্যা বর্ণবাদমূলক অভিযোগ আনা হচ্ছে বলে মন্তব্য করেন তিনি। এ ব্যাপারে টুইটারে গনজালেজ বলেন, ‘কোথাও বর্ণবাদিতার জায়গা নেই। মাঝে মাঝে তোমাকে শিখতে হবে কিভাবে হারতে হয়। আর হারটা মাঠেই মেনে নিতে হয়। আমরা পূর্ণ ৩ পয়েন্ট তুলে নিয়েছি। অসাধারণ ব্যাপার এটি।’

গনজালেজের এই টুইটের পর পুনরায় আবার টুইট করেন নেইমার। সেখানে তিনি বলেন, গনজালেজের প্রতি তার কোনো শ্রদ্ধা নেই। এই ব্যাপারে নেইমার বলেন, ‘আমি তোমাকে সম্মান করি না। তুমি হলে চরিত্রহীন। মানুষ হও রেসিস্ট।’

এসএইচ

LEAVE A REPLY